এই দিকে রাবেয়া কি করছে❓আর বিদেশে বিনাদোষে স্বামীর ২০ বছরের জেল ❗

এই দিকে রাবেয়া কি করছে আর বিদেশে বিনাদোষে স্বামীর ২০ বছরের জেল

বিনাদো’ষে সৌদি আরবে স্বামীর ২০ বছরের জে’ল হওয়ার খবর শুনে পাঁচ বছরের শিশুকে কোলে নিয়ে সরকারের বিভিন্ন দপ্তরে দ্বারে দ্বারে ঘুরছেন মেহেন্দিগঞ্জের মেয়ে রাবেয়া। তিনি জানান, সৌদি আরবে মা’দক পা’চারের অভি’যোগে স্বামী আবুল বাশারকে জেল দেয় দেশটির কর্তৃপক্ষ। কিন্তু যার দো’ষে তার স্বামী জে’ল খা’টছেন তার বি’রু’দ্ধে মাম’লা হলেও তিনি জামিনে বের হয়ে ঘুরছেন। আর এখন তিনি স্বামীর রেখে যাওয়া ঋণের ৮ লাখ টাকা শো’ধ করতে সন্তানকে সঙ্গে নিয়ে কাজের স’ন্ধানে ঢাকায় ঘুরছেন।

রাবেয়া জানান, তার স্বামী আবুল বাশার গত বছরের ডিসেম্বরে ছুটি কা’টাতে দেশে আসেন। ছুটি শেষে ১১ মার্চ দিবাগত রাতে সৌদি আরবে যাওয়ার সময় তিনি ঘটনার শি’কার হন। তাদের বিয়ে হয়েছে ৭ বছর। রাবেয়ার অভি’যোগ, সৌদি আরবে যাওয়ার পথে হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে নূর মোহাম্মদ নামের এক ব্যক্তি তার স্বামীর ব্যাগে আচার রয়েছে বলে জো’র করে ই’য়া’বা ঢু’কিয়ে দেন। নূর মোহাম্মদ বিমানবন্দর পরি’চ্ছন্নতার দায়িত্ব পাওয়া প্রতিষ্ঠান একে ট্রেডার্সের এসআর সুপারভাইজার হিসেবে ওই সময় কাজ করতেন।

সিসি ক্যা’মেরার ফুটে’জে নূর মোহাম্মদকে শনাক্ত করে এয়ারপোর্ট আর্মড পুলিশ গ্রে’ফতা’রও করে। কিন্তু তিনি গ্রে’ফতা’রের চার দিন পরই জা’মিনে বেরিয়ে এসেছেন। সৌদি আরবে বাংলাদেশ দূতাবাসে সবকিছুই জানানো হয়েছিল। তারা যথে’ষ্ট স’ক্রিয় ছিল না। সে কারণে তার স্বামীকে এখন কা’রাভো’গ করতে হচ্ছে। হাতে সময় খুব কম। এক মাসের মধ্যে আ’পিল করতে হবে। নির্দোষ বাশারের মুক্তির জন্য সরকারের বিভিন্ন দপ্তরে ঘুরেও কোনো সমাধান পাচ্ছেন না তার স্ত্রী রাবেয়া। তার দাবি, সরকারের সংশ্লিষ্ট দপ্তরগুলো যেন বাশারকে মু’ক্ত করার ব্যবস্থা নেয়। পাঁচ বছরের মেয়েকে নিয়ে স্বামীর মু’ক্তির জন্য সরকারের ঊর্ধ্বতনদের দিকে তাকিয়ে আছেন তিনি।

রাবেয়া বলেন, ‘অ’পরিচিত ওই ব্যক্তির প্যাকেট নিতে অ’স্বীকৃতি জানান আমার স্বামী। একপর্যায়ে ওই ব্যক্তি নিজেকে বিমানের কর্মকর্তা পরিচয় দিয়ে তাকে ভ’য়ভী’তি দেখান। প্যাকেট না নিলে তাকে ফ্লা’ইটে উঠতে দেবেন না বলেও ভ’য় দেখান। এতেও নিতে রাজি না হলে একপর্যায়ে ওই ব্যক্তি নিজেই জো’র করে আমার স্বামীর ব্যাগে প্যাকেটটি ঢুকিয়ে দেয়। ভ’য়ভী’তি দেখানোয় এবং ফ্লাইটের সময় হয়ে যাওয়ায় কারও কাছে কোনো অভি’যোগ না দিয়ে আমার স্বামী ফ্লাইটে উঠে পড়েন। কিন্তু সৌদি আরবে পৌঁছানোর পর নিরাপ’ত্তাকর্মীরা তার ব্যা’গ তল্লা’শি করলে ই’য়াবা’র প্যাকেট পায় এবং আমার স্বামীকে জে’লে পাঠায়।’

তিনি বলেন, ‘বাংলাদেশ ত্যাগের পর থেকেই আমার স্বামীর খোঁজ পাচ্ছিলাম না। ২০ দিন পর ঘটনার বিস্তারিত এবং জেলে থাকার কথা জানিয়ে সৌদি থেকে টেলিফোন করেন তিনি। পরে ১৩ এপ্রিল বিমানবন্দরে গিয়ে এয়ারপোর্ট আর্মড পুলিশের কাছে অভি’যোগ জানাই। আর্মড পুলিশ আমার অভি’যোগের ভি’ত্তিতে বিমাবন্দরের সিসি ক্যামেরার রেক’র্ড চেক করে ঘটনার সত্যতা পায়। ১৪ এপ্রিল বিমানবন্দরে পরি’চ্ছন্নতার কাজে নিয়োজিত একে ট্রেডার্সের এসআর সুপারভাইজার নূর মোহাম্মদকে আ’টক করে তারা। এ ঘটনায় আমি বিমানবন্দর থা’নায় মা’মলা করি। এরই মধ্যে নূর মোহাম্মদকে গ্রে’ফতা’র করা হয়েছে।’

বাশারের স্ত্রী রাবেয়া বলেন, ‘আমার স্বামী অ’পরা’ধ না করেও প্রায় ৭ মাস ধরে জে’লে আছেন। সৌদি আরবের বাংলাদেশ দূতাবাস থেকে আইনি সহায়তা না পাওয়ায় এক প’ক্ষীয়ভাবে আ’দালত তাকে ২০ বছরের সা’জা দিয়েছে। বাংলাদেশ সরকারের পক্ষ থেকে কোনো সহায়তা না পেলে আমার স্বামীকে বিনা অ’পরা’ধে ২০ বছর জে’ল খা’টতে হবে। আমি আমার পাঁচ বছর বয়সী কন্যাসন্তানকে নিয়ে দেশে মান’বেতর জীবন যাপন করছি। মঙ্গলবার প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়, প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়সহ সংশ্লিষ্ট দপ্তরগুলোতে স্বামীর মু’ক্তিতে সরকারের সাহায্য চেয়ে আবেদন করেছেন রাবেয়া।

এয়ারপোর্ট আর্মড পুলিশ ব্যাটালিয়নের (এপিবিএন) অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোহাম্মদ জিয়াউল হক একটি গণমাধ্যমকে বলেন, ‘১৩ মার্চ সৌদিপ্রবাসী বাশারের স্ত্রী রাবেয়ার অ’ভিযো’গ পেয়ে সি’সিটিভি ফু’টেজ বিশ্লেষণ করে নূর মোহাম্মদকে শনা’ক্ত করি। পরদিন তাকে আটক করি।

তিনি আমাদের কাছে অপরাধের কথা প্রাথমিকভাবে স্বীকার করেছেন। পরে বিমানবন্দর থা’নায় করা রাবেয়ার মাম’লায় নূর মোহাম্মদ কা’রাগা’রে রয়েছেন। জিয়াউল হক বলেন, ‘আমরা অ’ভিযো’গের সত্যতা পাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে পুলিশের বিশেষ শাখায় বি’স্তারিত রিপোর্ট পাঠিয়েছি। বিশেষ শাখা ইন্টারপোলের বাংলাদেশ ডেস্কে পাঠিয়েছে। তারাও সৌদি আরবের ইন্টারপোলকে চিঠি লিখেছে বলে জানি।

About admin

Check Also

ইতিহাদ এয়ারলাইনস দুই কোটি টাকা ক্ষতিপূরণ হিসেবে বাংলাদেশী মা-মেয়েকে প্রদান করবে !

ইতিহাদ এয়ারলাইনস দুই কোটি টাকা ক্ষতিপূরণ হিসেবে বাংলাদেশী মা-মেয়েকে প্রদান করবে !সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী অ্যাডভোকেট …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *